সংস্করণ: ২.০১

স্বত্ত্ব ২০১৪ - ২০১৭ কালার টকিঙ লিমিটেড

Entitled-Filmmaker-600x337.jpg

জাতীয় চলচিত্র দিবস জাতীয় চলচিত্র দিবসকে ঘিরে শিল্পকলার নানা আয়োজন

এই বিশেষ দিনটিকে স্মরণ করে ২০১২ সালে প্রথমবার জাতীয় চলচিত্র দিবস পালন করা হয়। সেই ধারাবাহিকতায় এবারও এ দিবসকে ঘিরে নানা আয়োজন করেছে বাংলাদেশ চলচিত্র উন্নয়ন কর্পোরেশন।

আজ জাতীয় চলচিত্র দিবস। ১৯৫৭ সালে ৩ এপ্রিল, বন্ধবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান পুর্ব পাকিস্তান প্রাদেশিক পরিষদে ‘চলচিত্র উউন্নয়ন কর্পোরেশন (এফডিসি)’ গঠনের প্রস্তাব উত্থাপন করেন।

এই বিশেষ দিনটিকে স্মরণ করে ২০১২ সালে প্রথমবার জাতীয় চলচিত্র দিবস পালন করা হয়। সেই ধারাবাহিকতায় এবারও এ দিবসকে ঘিরে নানা আয়োজন করেছে বাংলাদেশ চলচিত্র উন্নয়ন কর্পোরেশন।

তথ্য মন্ত্রণালয়ের উদ্যোগে ও বাংলাদেশ চলচ্চিত্র উন্নয়ন কর্পোরেশনের (এফডিসি) তত্ত্বাবধানে দিনটিকে ঘিরে থাকছে বর্ণিল আয়োজন ও কর্মসূচি। জাতীয় চলচ্চিত্র দিবস উপলক্ষে আজ বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমিতে নানা অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছে।

বিকেল ৫টায় একাডেমির জাতীয় সংগীত ও নৃত্যকলা কেন্দ্রের লবিতে রয়েছে বাংলাদেশ ফিল্ম আর্কাইভের সঙ্গে যৌথভাবে চলচ্চিত্রের পোস্টার, স্থিরচিত্র ও প্রয়াত চলচ্চিত্র ব্যক্তিত্বদের প্রতিকৃতি প্রদর্শনী। সন্ধ্যা সাড়ে ৬টায় একাডেমির জাতীয় সংগীত ও নৃত্যকলা কেন্দ্র মিলনায়তনে আলোচনা ও চলচ্চিত্রের গানের অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে থাকবেন নায়করাজ রাজ্জাক।

বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমির মহাপরিচালক লিয়াকত আলী লাকীর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে আলোচক হিসেবে থাকবেন চলচ্চিত্র নির্মাতা সৈয়দ সালাউদ্দিন জাকী, মানজারে হাসিন মুরাদ, মোরশেদুল ইসলাম, চলচ্চিত্র গবেষক অনুপম হায়াত, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের গণযোগাযোগ ও সাংবাদিকতা বিভাগের সহযোগি অধ্যাপক সাবরিনা সুলতানা চৌধুরী, বাংলাদেশ ফিল্ম আর্কাইভের মহাপরিচালক ড. জাহাঙ্গীর হোসেন। অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য প্রদান করবেন একাডেমির নাট্যকলা ও চলচ্চিত্র বিভাগের পরিচালক সারা আরা মাহমুদ।

এছাড়াও, আগামী ৪ থেকে ১০ এপ্রিল প্রতিদিন সন্ধ্যা সাড়ে ৬টায় একাডেমির জাতীয় নাট্যশালার ইন্টারন্যাশনাল কালচারাল আর্কাইভে জাতীয় পুরস্কারপ্রাপ্ত চলচ্চিত্র নিয়ে বাংলাদেশ ফিল্ম আর্কাইভের সঙ্গে যৌথভাবে আয়োজন করা হয়েছে চলচ্চিত্র প্রদর্শনী।

৪ এপ্রিল মুরাদ পারভেজ পরিচালিত ‘বৃহন্নলা’, ৫ এপ্রিল গাজী রাকায়েতের ‘মৃত্তিকা মায়া’, ৬ এপ্রিল শাহনেওয়াজ কাকলীর ‘উত্তরের সুর’, ৭ এপ্রিল নাসিরউদ্দীন ইউসুফের ‘গেরিলা’, ৮ এপ্রিল প্রয়াত খালিদ মাহমুদ মিঠুর ‘গহীনে শব্দ’, ৯ এপ্রিল গিয়াস উদ্দিন সেলিমের ‘মনপুরা’ এবং ১০ এপ্রিল দেখানো হবে তৌকীর আহমেদের ‘দারুচিনি দ্বীপ’।


এখানে প্রকাশিত প্রতিটি লেখার স্বত্ত্ব ও দায় লেখক কর্তৃক সংরক্ষিত। আমাদের সম্পাদনা পরিষদ প্রতিনিয়ত চেষ্টা করে এখানে যেন নির্ভুল, মৌলিক এবং গ্রহণযোগ্য বিষয়াদি প্রকাশিত হয়। তারপরও সার্বিক চর্চার উন্নয়নে আপনাদের সহযোগীতা একান্ত কাম্য। যদি কোনো নকল লেখা দেখে থাকেন অথবা কোনো বিষয় আপনার কাছে অগ্রহণযোগ্য মনে হয়ে থাকে, অনুগ্রহ করে আমাদের কাছে বিস্তারিত লিখুন।

সিনেমা, শিল্পকলা-একাডেমী, আয়োজন, জাতীয়-চলচিত্র-দিবস